বৃহস্পতিবার, জুন ১৩, ২০২৪
spot_img

ঢাকা জেলা কিসের জন্য বিখ্যাত

ঢাকা জেলা কিসের জন্য বিখ্যাত

যারা বলে থাকেন ঢাকা জেলা কিসের জন্য বিখ্যাত তারা এখনো বোকার রাজ্য রয়েছেন। ইতিহাস,ঐতিহ্য,সংস্কৃতি কৃষ্টি, কালচার সবকিছুর মিশালে এক অনন্য ঢাকা জেলা। ঢাকা শহর জাদুর শহর,টাকার শহর। বেনারসি শাড়ি, বাকরখানি, বিরিয়ানির জন্য বিখ্যাত ঢাকা শহর । রীতিমত সমগ্র বাঙালি জাতির এক ঐক্যবদ্ধ ভাব প্রকাশক ঢাকা জেলা। ( Dhaka Jela Kiser Jonno Bikkhato )

ঢাকা জেলা কিসের জন্য বিখ্যাত । Dhaka Jela Kiser Jonno Bikkhato

 

 

মূলত আজকের আর্টিকেলে আমরা আলোচনা করতে চলেছি, ঢাকা জেলা কিসের জন্য বিখ্যাত সে সম্পর্কে । তার পাশাপাশি জানবো ঢাকা জেলার ইতিহাস, ঢাকা জেলার বিখ্যাত ব্যক্তিবর্গ, ঢাকা জেলার বিখ্যাত খাবারঢাকা জেলার দর্শনীয় স্থান সম্পর্কে। আসা করি আপনাদের ভালো লাগবে।

ঢাকা জেলার ইতিহাস

বর্তমান ঢাকা জেলা মূলত বঙ্গ জনপদের অন্তর্ভুক্ত । মোগল শাসনের পূর্বে এটি বার ভূইয়াদের শাসনাধীন ছিল। পরবর্তীতে ১৬১০ খ্রিস্টাব্দে মোগল সম্রাট জাহাঙ্গীর বার ভূইয়াদের আক্রমণ করে পরাজিত করেন এবং সেখানে গভর্নর হিসেবে ইসলাম খান চিশতীকে নিয়োগ দেন। 

 

সেই সময় ঢাকার নামকরণ করা হয়েছিল জাহাঙ্গীরনগর। অনেক আগে থেকেই ঢাকা অত্র এলাকার বাণিজ্য কেন্দ্র হিসেবে পরিচিত ছিল। 

 

তবে জানিয়ে রাখা ভালো, ১৬১০ খ্রিস্টাব্দে ইসলাম খান চিশতী ঢাকার প্রশাসনিক নাম জাহাঙ্গীরনগর করলেও মূলত মানুষের মুখে মুখে এটি ঢাকা নামেই পরিচিত ছিল ।

ঢাকার নামকরণ

মূলত এর রাজা বল্লাল সেনের সময়কালে সেখানে ঢাকেশ্বরী মন্দির নামের একটি মন্দির গড়ে তোলা হয়েছিল। ঢাকেশ্বর এর অর্থ ঢাকার ঈশ্বর। মূলত সেখান থেকে ঢাকা নামটির প্রচলন হয়েছে । 

 

১৯৮২ সালের পূর্বে এটি ইংরেজিতে “Dacca” নামে পরিচিত ছিল। পরবর্তীতে এটি ইংরেজিতে dhaka হিসেবে লেখা হত ।

 

ঢাকা কিসের জন্য বিখ্যাত

বাংলাদেশের প্রাণ কেন্দ্র ঢাকা- জামদানি শাড়ি, বেনারসী শাড়ি, বাকরখানি এবং বিরিয়ানি জন্য ঢাকা জেলা বিখ্যাত। এছাড়াও ঢাকা জেলা বিখ্যাত হওয়ার পিছনে কিছু বিখ্যাত ব্যক্তিবর্গ এবং ঢাকা জেলার দর্শনীয় স্থানের জন্য এই জেলা দেশ জুড়ে বিখ্যাত। নিচে এই সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করা হলো। ( Dhaka Jela Kiser Jonno Bikkhato )

ঢাকা জেলার বিখ্যাত ব্যক্তি বর্গ

 

ঢাকা জেলার বিখ্যাত ব্যক্তি বর্গ

 

ঢাকা জেলায় এত পরিমাণে বিখ্যাত ব্যক্তিবর্গ রয়েছে যে তাদের নাম বলে শেষ করা যাবেনা। মূলত এই সকল ব্যক্তিত্বের পরিচয় এর মাধ্যমে বোঝা যায় ঢাকা জেলা কিসের জন্য বিখ্যাত

 

নবাব সলিমুল্লাহ: নিখিল ভারত মুসলিম লীগের প্রতিষ্ঠাতা। 

শামসুর রহমান: বিখ্যাত লেখক,সাহিত্যিক। 

আজম খান: বাংলাদেশের প্রখ্যাত গায়ক ও  বাংলাদেশের পপ সংগীতের অগ্রপথিক ।

আব্দুর রহমান বয়াতি: বাংলাদেশের একজন প্রসিদ্ধ সংগীত শিল্পী। 

নবাব আহসানুল্লাহ: উনিশ শতকে বাংলার প্রখ্যাত ধনকুবের ও সমাজ সেবক।

 

এছাড়াও ঢাকা জেলায় এত বিপুল পরিমাণে বিখ্যাত প্রখ্যাত মানুষ জন্মগ্রহণ করেছেন যে তাদের তালিকা তৈরি করতে গেলে বছরের পর বছর সময় লেগে যেতে পারে । তবে যাদের নাম ঘুরেফিরে আসে, তাদেরকে মূলত এই আর্টিকেলে ঠাই করে দেয়া হলো । 

ঢাকা জেলার বিখ্যাত খাবার

ঢাকা জেলার বিখ্যাত খাবার

 

ঢাকা জেলায় এতো এতো ঐতিহ্যবাহী বিখ্যাত খাবার রয়েছে যেটা বলে শেষ করা যাবে না । ভজনসিকরাই প্রমাণ দিয়ে দেন যে ঢাকা কিসের জন্য বিখ্যাত। 

 

তবে এমন কিছু বিখ্যাত খাবার রয়েছে যদি সেগুলো উল্লেখ না করা হয় তবে রীতিমতো অন্যায় হবে। 

 

  • হাজির বিরিয়ানি: মাত্র কয়েক বর্গফুট জায়গার মধ্যে করে ওঠা বিরিয়ানির এই দোকানটি বর্তমানে দেশ পেরিয়ে দেশের বাইরেও ব্যাপক সুনাম অর্জন করেছে ।

 

  • নান্না বিরিয়ানি: বেচারাম দেউরীর নন্নার বিরিয়ানি আর হাজির বিরিয়ানির ভক্তদের মতো যদি তর্ক বিতর্ক লেগে যায় তাহলে নির্ঘাত বিশ্ব তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধ বেধে যেতে পারে।

 

  • কাচ্চি ভাইয়ের কাচ্চি: বর্তমানে এই প্রতিষ্ঠানটি সমগ্র ঢাকায় একচেটিয়া বিরানির ব্যবসা করে চলেছে ।

 

  • মোহাম্মদপুর জেনেভা ক্যাম্প: এটি বিহারী ক্যাম্প নামে পরিচিত। এখানকার গরম ও খাসির চাপ এবং বিরিয়ানি তামাম ঢাকা শহরে মশহুর ।

 

বিরানি ছাড়াও বিভিন্ন মসলাদার খাবার, মাংসের হরেক রকমের আইটেম, মিষ্টান্ন সহ আরো বেশ কয়েকটি পদের জন্য বিখ্যাত ঢাকা শহর। 

 

  • চকবাজারের ইফতারির দোকান: প্রতিবছর রমজান মাস এলেই চকবাজারের ব্যবসায়ীদের আঙ্গুল ফুলে কলাগাছ হয়ে যায়। কেননা এটা হয়তো আমরা সকলেই জানি রমজান মাস এলে চকবাজারে কি পরিমান ইফতারি বিক্রির ব্যবসা করা হয় । একটি পরিসংখ্যান থেকে জানা গিয়েছে প্রতিবছর এই ইফতারি বাজারের মার্কেট ভলিউম প্রায় ১০০ কোটি টাকা। 

 

এছাড়াও পুরান ঢাকার ঐতিহ্যবাহী খাবার গুলোর মধ্যে কাচ্চি বিরিয়ানি ,মোরগ পোলাও, পুরি ,বিভিন্ন স্বাদের কাবাব এবং বাকরখানি খুবই বিখ্যাত। 

লালবাগ চৌরাস্তার ভেল পুরী, হোটেল আল রাজ্জাকের কাচ্চি ও ক্লাসি , বংশালের শমসের আলীর ভুনা খিচুড়ি, সুলতান ডাইন্সের কাচ্চি, নবাবপুর রোডে হোটেল স্টার এর খাসির লেকুস,  চিংড়ি ও ফালুদা , নাজিমুদ্দিন রোডের হোটেল নিরব এর ব্রেন ফ্রাই ফাই এবং ভর্তা, ক্যাফে খিলখাওয়ের কালা ভুন, নাজিরা বাজার মোড়ের বিসমিল্লা বটি কাবাব ও চান্দুর নেহারী।

 

ধারণা করা হয়ে থাকে, দীর্ঘ মুঘল শাসনের কারণে ঢাকা শহর মসলাদার খাবারে পরিপূর্ণ হয়ে উঠেছে । 

 

ঢাকার অলিতে গলিতে প্রচুর পরিমাণে রেস্টুরেন্ট গড়ে উঠেছে । তবে সম্প্রতি সময়ে একটি গবেষণায় দেখা গিয়েছে, ঢাকায় যে কয়টি রেস্টুরেন্ট রয়েছে তার মধ্যে ৮০ শতাংশ রেস্টুরেন্ট আইনি বিধিবদ্ধতার মধ্যে পড়ে না। তারা নিজেদের মতো করে ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। অনেক রেস্টুরেন্টের খাবার দাবার অস্বাস্থ্যকর এবং আন্ত্রিক গোলযোগের কারণ হতে পারে। 

ঢাকা জেলার দর্শনীয় স্থান

ঢাকা জেলার দর্শনীয় স্থান

 

ঢাকা জেলায় এত বিফল পরিমাণে দর্শনীয় স্থান রয়েছে যেগুলো আপনি গুনে শেষ করতে পারবেন না । যাদের প্রশ্ন যে ঢাকা জেলা কিসের জন্য বিখ্যাত , তাদের মোক্ষম উত্তর হতে পারে ঢাকা জেলার এ সকল দর্শনীয় স্থানগুলি। 

 

  •  বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান স্মৃতি জাদুঘর

  • আহসান মঞ্জিল

  • মিরপুর শেরে বাংলা আন্তর্জাতিক স্টেডিয়াম

  • বাইতুল্লাহ মোকাররম

  • জাতীয় জাদুঘর

  • অপরাজেয় বাংলা ভাস্কর্য

  • খ্রিস্টান কবরস্থান

  • স্বাধীন বাংলা স্কয়ার

  • ঐতিহাসিক সরওয়ার্দী উদ্যান

  • হোটেল শেরাটন

  • শাপলা চত্বর ফোয়ারা

  • বাংলাদেশ আর্মি স্টেডিয়াম

  • হোটেল সোনারগাঁও

  • লালবাগ কেল্লা

  • কমলাপুর স্টেশন

  • লোক শিল্প জাদুঘর

  • গুলশান লেক

  •  ওসমানী উদ্যান 

  • গণভবন 

  • জাতীয় সংসদ ভবন

  •  জাতীয় স্মৃতিসৌধ

  •  কদম ফোয়ারা

  •  বিমানবন্দর রক্ষা বাঁধ

  • হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর 

  • বাংলাদেশ বিজ্ঞান জাদুঘর 

  • বোটানিকাল গার্ডেন 

  • জাতীয় আর্কাইভ

  •  রাজউক

  • ফ্যান্টাসি কিংডম

  • মেশিন টুলস ফ্যাক্টরি

  • আনন্দনগর পার্ক 

 

বাংলাদেশের অধিকাংশ জেলার মানুষজন ঢাকা সম্পর্কে খুব একটা ইতিবাচক ধারণা পোষণ করে না । এটি একটি বাস্তব সম্পন্ন কথা। তবে তার চেয়েও বড় বাস্তবতা এটাই যে ঢাকার ঐতিহ্য এবং সংস্কৃতি আমাদেরকে জানিয়ে দেয় ঢাকা জেলা কিসের জন্য বিখ্যাত !

 

ইতিহাস ঐতিহ্য এবং বাহারি রঙ্গের খাবারের স্বাদ উপভোগ করতে চাইলে আপনাকে অবশ্যই আসতে হবে ধুলোমাখা এই শহরে ।

 

আসা করি আজকে এই আর্টিকেল থেকে ” ঢাকা জেলা কিসের জন্য বিখ্যাত ” তা সম্পর্কে এবং ঢাকা জেলা সম্পর্কে কিছুটা ধারণা পেয়েছেন। আসা করি আপনাদের সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি ভালো লেগেছে। আমাদের সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ।

আরো খবর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisement -spot_img

সর্বশেষ