সোমবার, জুন ২৪, ২০২৪
spot_img

বঙ্গবাজারে ভয়াবহ আগুন: নিয়ন্ত্রনে কাজ করছে ৫০ টি ইউনিট

ভোর থেকে প্রায় ৪ ঘণ্টা অতিবাহিত হলেও এখনো নিয়ন্ত্রণে আসেনি বঙ্গবাজারের আগুন। এ ঘটনায় আহত ও ধোঁয়ায় অসুস্থ হয়ে পড়েছেন ফায়ার সার্ভিসের (দমকল) চার সদস্যসহ আটজন। তাদের উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতাল ও বার্ন ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয়েছে।

আজ মঙ্গলবার (৪ এপ্রিল) সকাল ১০টার দিকে তাদের হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। আহতদের মধ্যে বার্ন ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ফায়ার ম্যান মেহেদী হাসান (২৩)। এ ছাড়া ঢাকা মেডিক্যালে চিকিৎসাধীন আছেন ফায়ারম্যান আতিকুর রহমান রাজন (২৫) ও রবিউল ইসলাম অন্তর (২৫) দোকান কর্মচারী শাহিন (৪৫) নিলয় (২৩)। বাকিদের পরিচয় এখনো জানা সম্ভব হয়নি।

এদিকে ঢাকা মেডিক্যাল পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ (ইন্সপেক্টর) মো. বাচ্চু মিয়া জানান, ফায়ার সার্ভিসের দুজন কর্মী ও দুই দোকান কর্মচারীকে ঢাকা মেডিকেলে নিয়ে আসা হয়েছে। তাদের শরীরে আঘাত রয়েছে। তবে গুরুতর নয়।

ফায়ার সার্ভিসের নিয়ন্ত্রণ কক্ষের ডিউটি অফিসার রাফি আল ফারুক বলেন, মঙ্গলবার (৪ এপ্রিল) সকাল ৬টা ১০ মিনিটে বঙ্গবাজার মার্কেট আগুন লাগার খবর পাই। সংবাদ পাওয়ার পর আমাদের একের পর এক ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছে আগুন নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। বর্তমানে ৫০টিও বেশি ইউনিট ঘটনাস্থলে কাজ করছে। সঙ্গে সেনা, নৌ ও বিমান বাহিনীর সাহায্যকারী দল যুক্ত হয়েছে।

তিনি আরও জানান, আগুনে এখন পর্যন্ত হতাহতের খবর নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তাৎক্ষণিকভাবে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণও জানানো যাচ্ছে না। এদিকে ভয়াবহ এই আগুন নেভাতে পানির সংকটে পড়েছে কর্মীরা। দ্রুত সেই সমস্যা সমাধানে বঙ্গবাজারের পার্শ্ববর্তী ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শহিদুল্লাহ হলের পুকুর থেকে নেওয়া হচ্ছে পানি।

ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা মার্কেটের চার দিক থেকে আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে। তবে বাতাসের কারণে আগুন ছড়িয়ে পড়ছে। বঙ্গবাজার মার্কেটে লাগা আগুন পাশের এনেক্সকো টাওয়ারেও ছড়িয়ে পড়েছে। আগুনের কারণে ধোঁয়ার কুণ্ডলীতে ছেয়ে গেছে বঙ্গবাজারের আকাশ। ভয়াবহ এ আগুনের কারণে প্রচণ্ড তাপ অনুভূত হচ্ছে। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে আগুনের তীব্রতা বাড়ছে।

মার্কেটের দোকানিরা জানান, প্রথমে আগুন লাগে গুলিস্তান মার্কেটে। সেখানে থেকে আগুন ছড়িয়ে পড়ে বঙ্গবাজার মার্কেটে। এখন পাশের অন্য ভবনেও ছড়িয়ে পড়েছে। কাপড়ের মার্কেট হওয়ায় দ্রুত আগুন ছড়িয়ে পড়ে।

আরো খবর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisement -spot_img

সর্বশেষ